ঢাকা ০৩:২৭ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ময়মনসিংহ সদরে ব্যাপক গণসংযোগ করছেন উপজেলা চেয়ারম্যান আশরাফ হোসাইন

দেশের আওয়াজ ডেস্কঃ
  • আপডেট সময় : ১০:৪৬:৩৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪ ৩৯ বার পড়া হয়েছে

আসন্ন ময়মনসিংহ সদর উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে বর্তমান সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য, সাবেক ছাত্রনেতা আশরাফ হোসাইন আসন্ন উপজেলা পরিষদের নির্বাচন উপলক্ষে দ্বিতীয় মেয়াদে আবারো প্রার্থী হিসাবে ব্যপক গণসংযোগ করে যাচ্ছেন।

ধারাবাহিক গণসংযোগের অংশ হিসেবে মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলার ভাবখালী ইউনিয়নের ভাবখালী বাজার,নারায়নপুর, চকবন পাথালিয়া নতুন বাজারে ও পরদিন বুধবার উপজেলার বিভিন্ন গ্রামেগঞ্জে গণসংযোগ ও বিভিন্ন পেশাশ্রেণীর ব্যক্তিবর্গের সাথে মতবিনিময় এবং বিভিন্ন স্থানে বাজারের ব্যবসায়ীসহ সর্বস্তরের জনগণের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।

ভাবখালী ইউনিয়নে গণসংযোগকালে তার সাথে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক আনোয়ারুল কাদির,যুবলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক হাবিবুর রহমান হবি, ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুস সাত্তার সেহেল,ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শাহজাহান সরকারসহ বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ এসময় তার সাথে ছিলেন। পরে ঈদ পুণর্মিলনী উপলক্ষে রাত ১১টায় তিনি চকবন পাথালিয়া নতুন বাজার নাট্য গোষ্ঠী আয়োজিত নাট্যমঞ্চে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন।

এ সময় তিনি বলেন, ভাবখালী ইউনিয়নের মানুষের সাথে আমার আত্মার সম্পর্ক জড়িয়ে আছে। এ ইউনিয়নের মানুষের প্রতি অধিকার আমার বেশি, আশা রাখি এ ইউনিয়নের মানুষ আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আমাকে আবারও নির্বাচিত করার জন্য গুরুত্বপুর্ণ ভূমিকা রাখবে। এ ইউনিয়ন সব সময় আওয়ামী লীগ জিতে, সামনে নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনয়ন দেবেনা, সেহেতু আমাকে আপনারা নিজের সন্তান হিসাবে বুকে জায়গা দিয়ে নির্বাচনে বিজয়ী করতে আপনাদের দায়িত্ব নিতে হবে।

তিনি বলেন, স্বপ্নেও আমি ভাবখালীর মানুষ ও রাস্তাঘাট দেখি। এ ইউনিয়নের মানুষ আমার সব চাইতে প্রিয় । আপনাদের ভালোবাসায় জনগনের সেবা করাই আমার যেন নেশা হয়ে উঠেছে, মানুষের কল্যাণে কাজ করাই আমার এক মাত্র উদ্যেশ্য। তাই আবারও নির্বাচন করতে আপানাদের সার্বিক সহযোগীতা প্রত্যাশা করছি।

আসন্ন সদর উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে জনসাধারণের দাবির পেক্ষিতেই আমি আবার প্রার্থী হচ্ছি, এ জন্য আপনাদের সমর্থন ও দোয়া নিয়েই মাঠে নামতে চাই। তাই আমি নেতাকর্মীসহ সর্বস্তরের মানুষের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় শুরু করেছি।
আমি ইউনিয়ন পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেছি, বর্তমানে চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করছি, এ দায়িত্ব পালন কালে হয়তো আপনাদের সকল চাহিদা আমি পূরণ করতে পারিনি, কিন্তু আপনাদের সাথে আমি খারাপ ব্যবহার করিনি, সবার সাথে সমন্বয় করেই দায়িত্ব পালন করছি।

তিনি বলেন-বিগত দিনে আমি উপজেলা চেয়ারম্যান থাকাকালীন প্রতিটি ইউনিয়নে ব্যাপক উন্নয়ন করার চেষ্টা করেছি। ছোট ছোট রাস্তা, গাইড ওয়াল, নলকূপ স্থাপন, মসিজদ, মন্দিরসহ সর্বক্ষেত্রেই আমি উন্নয়ন করার চেষ্টা করেছি। যখন যে কেউ আমার উপজেলায় আবেদন করেছে, আমি সর্বোচ্চ চেষ্টা করে দ্রুত সময়েই তা করে দেওয়ার চেষ্টা করেছি, করে যাচ্ছি। কেউই আমার থেকে নিরাশ হয়নি।

তিনি আরো বলেন, আমি দীর্ঘদিন আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত। রাজনীতি আমার রক্তের সাথে মিশে আছে। সেই ছাত্র রাজনীতি থেকে শুরু করে এখন পর্যন্ত আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত রয়েছি। বিভিন্ন সময়ে দলের আন্দোলন সংগ্রামে রাজপথে থেকেছি। আপনাদের সেবা করার জন্যই আমি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আবারও চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয়েছি।
এসময় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগসহ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

ময়মনসিংহ সদরে ব্যাপক গণসংযোগ করছেন উপজেলা চেয়ারম্যান আশরাফ হোসাইন

আপডেট সময় : ১০:৪৬:৩৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪

আসন্ন ময়মনসিংহ সদর উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে বর্তমান সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য, সাবেক ছাত্রনেতা আশরাফ হোসাইন আসন্ন উপজেলা পরিষদের নির্বাচন উপলক্ষে দ্বিতীয় মেয়াদে আবারো প্রার্থী হিসাবে ব্যপক গণসংযোগ করে যাচ্ছেন।

ধারাবাহিক গণসংযোগের অংশ হিসেবে মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলার ভাবখালী ইউনিয়নের ভাবখালী বাজার,নারায়নপুর, চকবন পাথালিয়া নতুন বাজারে ও পরদিন বুধবার উপজেলার বিভিন্ন গ্রামেগঞ্জে গণসংযোগ ও বিভিন্ন পেশাশ্রেণীর ব্যক্তিবর্গের সাথে মতবিনিময় এবং বিভিন্ন স্থানে বাজারের ব্যবসায়ীসহ সর্বস্তরের জনগণের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।

ভাবখালী ইউনিয়নে গণসংযোগকালে তার সাথে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক আনোয়ারুল কাদির,যুবলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক হাবিবুর রহমান হবি, ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুস সাত্তার সেহেল,ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শাহজাহান সরকারসহ বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ এসময় তার সাথে ছিলেন। পরে ঈদ পুণর্মিলনী উপলক্ষে রাত ১১টায় তিনি চকবন পাথালিয়া নতুন বাজার নাট্য গোষ্ঠী আয়োজিত নাট্যমঞ্চে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন।

এ সময় তিনি বলেন, ভাবখালী ইউনিয়নের মানুষের সাথে আমার আত্মার সম্পর্ক জড়িয়ে আছে। এ ইউনিয়নের মানুষের প্রতি অধিকার আমার বেশি, আশা রাখি এ ইউনিয়নের মানুষ আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আমাকে আবারও নির্বাচিত করার জন্য গুরুত্বপুর্ণ ভূমিকা রাখবে। এ ইউনিয়ন সব সময় আওয়ামী লীগ জিতে, সামনে নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনয়ন দেবেনা, সেহেতু আমাকে আপনারা নিজের সন্তান হিসাবে বুকে জায়গা দিয়ে নির্বাচনে বিজয়ী করতে আপনাদের দায়িত্ব নিতে হবে।

তিনি বলেন, স্বপ্নেও আমি ভাবখালীর মানুষ ও রাস্তাঘাট দেখি। এ ইউনিয়নের মানুষ আমার সব চাইতে প্রিয় । আপনাদের ভালোবাসায় জনগনের সেবা করাই আমার যেন নেশা হয়ে উঠেছে, মানুষের কল্যাণে কাজ করাই আমার এক মাত্র উদ্যেশ্য। তাই আবারও নির্বাচন করতে আপানাদের সার্বিক সহযোগীতা প্রত্যাশা করছি।

আসন্ন সদর উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে জনসাধারণের দাবির পেক্ষিতেই আমি আবার প্রার্থী হচ্ছি, এ জন্য আপনাদের সমর্থন ও দোয়া নিয়েই মাঠে নামতে চাই। তাই আমি নেতাকর্মীসহ সর্বস্তরের মানুষের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় শুরু করেছি।
আমি ইউনিয়ন পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেছি, বর্তমানে চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করছি, এ দায়িত্ব পালন কালে হয়তো আপনাদের সকল চাহিদা আমি পূরণ করতে পারিনি, কিন্তু আপনাদের সাথে আমি খারাপ ব্যবহার করিনি, সবার সাথে সমন্বয় করেই দায়িত্ব পালন করছি।

তিনি বলেন-বিগত দিনে আমি উপজেলা চেয়ারম্যান থাকাকালীন প্রতিটি ইউনিয়নে ব্যাপক উন্নয়ন করার চেষ্টা করেছি। ছোট ছোট রাস্তা, গাইড ওয়াল, নলকূপ স্থাপন, মসিজদ, মন্দিরসহ সর্বক্ষেত্রেই আমি উন্নয়ন করার চেষ্টা করেছি। যখন যে কেউ আমার উপজেলায় আবেদন করেছে, আমি সর্বোচ্চ চেষ্টা করে দ্রুত সময়েই তা করে দেওয়ার চেষ্টা করেছি, করে যাচ্ছি। কেউই আমার থেকে নিরাশ হয়নি।

তিনি আরো বলেন, আমি দীর্ঘদিন আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত। রাজনীতি আমার রক্তের সাথে মিশে আছে। সেই ছাত্র রাজনীতি থেকে শুরু করে এখন পর্যন্ত আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত রয়েছি। বিভিন্ন সময়ে দলের আন্দোলন সংগ্রামে রাজপথে থেকেছি। আপনাদের সেবা করার জন্যই আমি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আবারও চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হয়েছি।
এসময় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগসহ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।