ঢাকা ০৪:২১ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মানিকগঞ্জে ভুট্টার আড়ালে নিষিদ্ধ পপি চাষ

দেশের আওয়াজ ডেস্কঃ
  • আপডেট সময় : ১১:২২:৫৩ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ৪৭ বার পড়া হয়েছে

ভুট্টার আড়ালে মানিকগঞ্জের শিবালয়ে নিষিদ্ধ পপি (আফিম) চাষ করায় নুরুল ইসলাম (৪৫) নামে এক কৃষককে আটক করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। রবিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে তার কৃষিক্ষেত থেকে পপি গাছগুলো তুলে ডিবি কার্যালয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

আটককৃত নুরুল ইসলাম উপজেলার পুরান পয়লা গ্রামের জাবেদ খানের ছেলে। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

জেলা গোয়েন্দা পুলিশ জানায়, নুরুল ইসলাম পয়লা গ্রামের রাস্তার পশ্চিম পাশে ভুট্টা ক্ষেতের আড়ালে নিষিদ্ধ মাদক পপি গাছ লাগিয়েছেন। ছয় শতাংশ জমিতে চাষ করা পপি গাছে ফুল ও ফল ধরতে শুরু করেছে। এই ফলের নির্যাস থেকে আফিম তৈরি হয়, যা বাংলাদেশে চাষাবাদ নিষিদ্ধ। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শনিবার রাতে নুরুল ইসলামকে আটক করা হয়। তার ক্ষেতে ৩০ হাজারের মতো গাছ ছিল।

জেলা ডিবি পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) রিপন নাগ বলেন, ‘রবিবার দুপুরে নুরুল ইসলামের ক্ষেত থেকে পপি গাছগুলো তুলে ডিবি কার্যালয়ে নিয়ে এসেছি। তার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা করা হবে। গাছগুলো আরও পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরে পাঠানো হবে।’

শিবালয় উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আনিসুর রহমান বলেন, ‘গাছগুলো দেখে প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হয়েছি, এগুলো নিষিদ্ধ পপি। যা থেকে আফিম উৎপাদন হয়। এগুলোর চাষাবাদ ও বহন দেশের আইনে অপরাধ।’

সুত্রঃ বাংলা ট্রিবিউন

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

মানিকগঞ্জে ভুট্টার আড়ালে নিষিদ্ধ পপি চাষ

আপডেট সময় : ১১:২২:৫৩ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ভুট্টার আড়ালে মানিকগঞ্জের শিবালয়ে নিষিদ্ধ পপি (আফিম) চাষ করায় নুরুল ইসলাম (৪৫) নামে এক কৃষককে আটক করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। রবিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে তার কৃষিক্ষেত থেকে পপি গাছগুলো তুলে ডিবি কার্যালয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

আটককৃত নুরুল ইসলাম উপজেলার পুরান পয়লা গ্রামের জাবেদ খানের ছেলে। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

জেলা গোয়েন্দা পুলিশ জানায়, নুরুল ইসলাম পয়লা গ্রামের রাস্তার পশ্চিম পাশে ভুট্টা ক্ষেতের আড়ালে নিষিদ্ধ মাদক পপি গাছ লাগিয়েছেন। ছয় শতাংশ জমিতে চাষ করা পপি গাছে ফুল ও ফল ধরতে শুরু করেছে। এই ফলের নির্যাস থেকে আফিম তৈরি হয়, যা বাংলাদেশে চাষাবাদ নিষিদ্ধ। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শনিবার রাতে নুরুল ইসলামকে আটক করা হয়। তার ক্ষেতে ৩০ হাজারের মতো গাছ ছিল।

জেলা ডিবি পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) রিপন নাগ বলেন, ‘রবিবার দুপুরে নুরুল ইসলামের ক্ষেত থেকে পপি গাছগুলো তুলে ডিবি কার্যালয়ে নিয়ে এসেছি। তার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা করা হবে। গাছগুলো আরও পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরে পাঠানো হবে।’

শিবালয় উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা আনিসুর রহমান বলেন, ‘গাছগুলো দেখে প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হয়েছি, এগুলো নিষিদ্ধ পপি। যা থেকে আফিম উৎপাদন হয়। এগুলোর চাষাবাদ ও বহন দেশের আইনে অপরাধ।’

সুত্রঃ বাংলা ট্রিবিউন