ঢাকা ০৬:৫৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মনোনয়ন পেলে নির্বাচিত হয়ে ময়মনসিংহের রুপ রেখা পাল্টে দিবো-অধ্যাপক ডাঃ এম এ আজিজ

আরিফ রববানী , ময়মনসিংহ ||
  • আপডেট সময় : ০৬:৫৮:২৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২ জুন ২০২৩ ৯৭ বার পড়া হয়েছে

স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ) এর সাবেক মহাসচিব, বিএমডিসি এর চেয়ারম্যান, ময়মনসিংহ জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য, ময়মনসিংহ সদর আসন এলাকার সর্বস্তরের জনতার প্রিয়মুখ চিকিৎসক নেতা অধ্যাপক ডাঃ এম এ আজিজ
বলেছেন, বাংলাদেশ আওয়ামিলীগ ময়মনসিংহ জেলা এক অভিন্ন ঐক্যবদ্ধ শক্তি। আওয়ামী লীগের দশ বছরে যে উন্নয়ন হয়েছে তার ধারে কাছেউ নেই ময়মনসিংহ সদর এলাকার উন্নয়ন। গণতন্ত্রের মানসকন্যা বঙ্গবন্ধু কন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনা যদি আমাকে আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী হিসেবে মনোনীত করেন ময়মনসিংহের রুপ রেখা পাল্টে দিবো। আওয়ামীলীগ সভানেত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আগামী দিনে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মানে আওয়ামী লীগের একজন কর্মী হিসাবে কাজ করার মাধ্যমে জনগণের পাশে দাঁড়াতে আমি ময়মনসিংহ-৪আসন এলাকার প্রার্থী হিসাবে আছি। তিনি বলেন শিক্ষা নগরী ময়মনসিংহের জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাস্তার উন্নয়নে, বিভিন্ন স্কুল,কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য, জনগণের কল্যাণের জন্য দুহাত বরাদ্দ দিয়ে যাচ্ছেন। বরাদ্দ আসবে ময়মনসিংহের উন্নয়নে, কিন্তু মানুষের দুর্ভোগ থেকেই যাবে এটা হতে পারে না।

শুক্রবার দুপুর ২টা ১৫মিনিটে ডিবিসি নিউজ ইলেকশন এক্সপ্রেস কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, সবকিছু ভুলে আমরা আমাদের নেত্রীর হাতকে শক্তিশালী করতে ঐক্যবদ্ধ ভাবে ময়মনসিংহ সদর এলাকার মানুষের ভাগ্যোন্নয়নের লক্ষে কাজ করে যাচ্ছি। আমরা মানুষের দ্বারে দ্বারে যাচ্ছি, মানুষের কাছে যাব ঘরে ঘরে যাব, মহিলাদের কাছে গিয়েও আওয়ামী লীগের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড তুলে ধরে ভোট চেয়ে বেড়াচ্ছি। আর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মার্কা ও আওয়ামিলীগের মার্কা নৌকাকে বিজয়ী করতে সকলে এক সাথে কাজ করে যাচ্ছি।

তিনি বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে আমরা ঐক্যবদ্ধভাবে সকলে মিলে কাজ করব। আর ময়মনসিংহ সদরে আমাকে নৌকা প্রতীক দিলে আমার নির্বাচনী এলাকা সদরের প্রায় ৭লাখ ভোটারদের মাঝে আমার জন্মস্থান চরাঞ্চলের প্রায় ৩লাখ ৬৫হাজার ভোটার রয়েছে তারা আমাকে চরাঞ্চলের একমাত্র সন্তান হিসাবে আমার প্রতীক নৌকাকে বিজয়ী করার মাধ্যমে আমাকে প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মানে কাজ করতে আওয়ামী লীগের একজন কর্মী হিসাবে সমর্থন দিয়ে নির্বাচিত করবে।

তিনি বলেন, আমাদের দলীয় মার্কা নৌকা আর আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ডিজিটাল ও স্মার্ট বাংলাদেশের রুপকার জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে নৌকার মাঝি হিসেবে এই ময়মনসিংহ সদর আসনে পাঠালে চরাঞ্চলের প্রায় ৩লাখ ৬৫লাখ ভোটার সকলে মিলে ঐক্যবদ্ধ ভাবে কাজ করে নৌকাকে বিজয়ী করে ময়মনসিংহ সদর আসনকে জননেত্রী শেখ হাসিনাকে উপহার দিবেন।

অধ্যাপক ডাঃ এম এ আজিজ বলেন, ময়মনসিংহ সদর বাসীর উন্নয়নের জন্য যা যা প্রয়োজন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমি তাই করবো। সততা ও নিষ্ঠার সাথে আমি ময়মনসিংহ সদরের মানুষের জন্য কাজ করে যাব। আমি বঙ্গবন্ধুর একজন কর্মী হিসেবে রাষ্ট্র নায়ক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে জনগণের উন্নয়নে কাজ করতে চাই। ১৯৭৫ সালের পরে আওয়ামিলীগকে নিষ্ক্রিয় করার জন্য অনেক অপচেষ্টা চালানো হয়েছিল কিন্তু তারা সফল হতে পারি নি। ময়মনসিংহ সদর আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়ে একটি সুন্দর পরিকল্পিত স্মাট উপজেলা উপহার দিব। শেখ হাসিনা ময়মনসিংহ কে বিভাগ করে দিয়েছে কিন্তু বিভাগের কি উন্নয়ন হয়েছে তিনি এমন প্রশ্ন রাখেন সাংবাদিকদের কাছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ব্রহ্মপুত্রের এপার-ঐপাড় দুই পাড় মিলিয়ে একটা একটা আধুনিক ও মডেল বিভাগীয় শহর করতে চেয়েছেন কিন্তু কিছুই হয় নি। ব্রহ্মপুত্র নদ খননের জন্য, বিদ্যুৎ এর জন্য,বিভাগের উন্নয়নের জন্য আমি দপ্তরে কথা বলেছি, নগর উন্নয়নের জন্য, আধ্যাত্মিক নগরীকে স্মার্ট নগরী, ইউনাইটেড ইউনিটি গড়ার জন্য, আমি ইতিমধ্যে বিভিন্ন দপ্তরে দৌড়ঝাপ করে যাচ্ছি। সকলে যদি সহযোগিতা করে আমি জীবন দিয়ে হলেউ কাজ করবো ময়মনসিংহের উন্নয়নের জন্য। এই ময়মনসিংহের জন্য মাননীয় নেত্রী আমাকে নৌকা দিয়ে পাঠালে সদরবাসী আমাকে নির্বাচিত করবেন বলে আমি শতভাগ আশাবাদী। আর নির্বাচিত হয়ে সকল ধরনের উন্নয়নে কাজ করব ময়মনসিংহ সদরের সন্তান সকলের ছেলে হিসাবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

মনোনয়ন পেলে নির্বাচিত হয়ে ময়মনসিংহের রুপ রেখা পাল্টে দিবো-অধ্যাপক ডাঃ এম এ আজিজ

আপডেট সময় : ০৬:৫৮:২৬ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২ জুন ২০২৩

স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ) এর সাবেক মহাসচিব, বিএমডিসি এর চেয়ারম্যান, ময়মনসিংহ জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য, ময়মনসিংহ সদর আসন এলাকার সর্বস্তরের জনতার প্রিয়মুখ চিকিৎসক নেতা অধ্যাপক ডাঃ এম এ আজিজ
বলেছেন, বাংলাদেশ আওয়ামিলীগ ময়মনসিংহ জেলা এক অভিন্ন ঐক্যবদ্ধ শক্তি। আওয়ামী লীগের দশ বছরে যে উন্নয়ন হয়েছে তার ধারে কাছেউ নেই ময়মনসিংহ সদর এলাকার উন্নয়ন। গণতন্ত্রের মানসকন্যা বঙ্গবন্ধু কন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনা যদি আমাকে আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী হিসেবে মনোনীত করেন ময়মনসিংহের রুপ রেখা পাল্টে দিবো। আওয়ামীলীগ সভানেত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আগামী দিনে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মানে আওয়ামী লীগের একজন কর্মী হিসাবে কাজ করার মাধ্যমে জনগণের পাশে দাঁড়াতে আমি ময়মনসিংহ-৪আসন এলাকার প্রার্থী হিসাবে আছি। তিনি বলেন শিক্ষা নগরী ময়মনসিংহের জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রাস্তার উন্নয়নে, বিভিন্ন স্কুল,কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য, জনগণের কল্যাণের জন্য দুহাত বরাদ্দ দিয়ে যাচ্ছেন। বরাদ্দ আসবে ময়মনসিংহের উন্নয়নে, কিন্তু মানুষের দুর্ভোগ থেকেই যাবে এটা হতে পারে না।

শুক্রবার দুপুর ২টা ১৫মিনিটে ডিবিসি নিউজ ইলেকশন এক্সপ্রেস কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, সবকিছু ভুলে আমরা আমাদের নেত্রীর হাতকে শক্তিশালী করতে ঐক্যবদ্ধ ভাবে ময়মনসিংহ সদর এলাকার মানুষের ভাগ্যোন্নয়নের লক্ষে কাজ করে যাচ্ছি। আমরা মানুষের দ্বারে দ্বারে যাচ্ছি, মানুষের কাছে যাব ঘরে ঘরে যাব, মহিলাদের কাছে গিয়েও আওয়ামী লীগের উন্নয়ন কর্মকাণ্ড তুলে ধরে ভোট চেয়ে বেড়াচ্ছি। আর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মার্কা ও আওয়ামিলীগের মার্কা নৌকাকে বিজয়ী করতে সকলে এক সাথে কাজ করে যাচ্ছি।

তিনি বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে আমরা ঐক্যবদ্ধভাবে সকলে মিলে কাজ করব। আর ময়মনসিংহ সদরে আমাকে নৌকা প্রতীক দিলে আমার নির্বাচনী এলাকা সদরের প্রায় ৭লাখ ভোটারদের মাঝে আমার জন্মস্থান চরাঞ্চলের প্রায় ৩লাখ ৬৫হাজার ভোটার রয়েছে তারা আমাকে চরাঞ্চলের একমাত্র সন্তান হিসাবে আমার প্রতীক নৌকাকে বিজয়ী করার মাধ্যমে আমাকে প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মানে কাজ করতে আওয়ামী লীগের একজন কর্মী হিসাবে সমর্থন দিয়ে নির্বাচিত করবে।

তিনি বলেন, আমাদের দলীয় মার্কা নৌকা আর আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ডিজিটাল ও স্মার্ট বাংলাদেশের রুপকার জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে নৌকার মাঝি হিসেবে এই ময়মনসিংহ সদর আসনে পাঠালে চরাঞ্চলের প্রায় ৩লাখ ৬৫লাখ ভোটার সকলে মিলে ঐক্যবদ্ধ ভাবে কাজ করে নৌকাকে বিজয়ী করে ময়মনসিংহ সদর আসনকে জননেত্রী শেখ হাসিনাকে উপহার দিবেন।

অধ্যাপক ডাঃ এম এ আজিজ বলেন, ময়মনসিংহ সদর বাসীর উন্নয়নের জন্য যা যা প্রয়োজন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমি তাই করবো। সততা ও নিষ্ঠার সাথে আমি ময়মনসিংহ সদরের মানুষের জন্য কাজ করে যাব। আমি বঙ্গবন্ধুর একজন কর্মী হিসেবে রাষ্ট্র নায়ক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে জনগণের উন্নয়নে কাজ করতে চাই। ১৯৭৫ সালের পরে আওয়ামিলীগকে নিষ্ক্রিয় করার জন্য অনেক অপচেষ্টা চালানো হয়েছিল কিন্তু তারা সফল হতে পারি নি। ময়মনসিংহ সদর আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়ে একটি সুন্দর পরিকল্পিত স্মাট উপজেলা উপহার দিব। শেখ হাসিনা ময়মনসিংহ কে বিভাগ করে দিয়েছে কিন্তু বিভাগের কি উন্নয়ন হয়েছে তিনি এমন প্রশ্ন রাখেন সাংবাদিকদের কাছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ব্রহ্মপুত্রের এপার-ঐপাড় দুই পাড় মিলিয়ে একটা একটা আধুনিক ও মডেল বিভাগীয় শহর করতে চেয়েছেন কিন্তু কিছুই হয় নি। ব্রহ্মপুত্র নদ খননের জন্য, বিদ্যুৎ এর জন্য,বিভাগের উন্নয়নের জন্য আমি দপ্তরে কথা বলেছি, নগর উন্নয়নের জন্য, আধ্যাত্মিক নগরীকে স্মার্ট নগরী, ইউনাইটেড ইউনিটি গড়ার জন্য, আমি ইতিমধ্যে বিভিন্ন দপ্তরে দৌড়ঝাপ করে যাচ্ছি। সকলে যদি সহযোগিতা করে আমি জীবন দিয়ে হলেউ কাজ করবো ময়মনসিংহের উন্নয়নের জন্য। এই ময়মনসিংহের জন্য মাননীয় নেত্রী আমাকে নৌকা দিয়ে পাঠালে সদরবাসী আমাকে নির্বাচিত করবেন বলে আমি শতভাগ আশাবাদী। আর নির্বাচিত হয়ে সকল ধরনের উন্নয়নে কাজ করব ময়মনসিংহ সদরের সন্তান সকলের ছেলে হিসাবে।