ঢাকা ০৮:০১ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বাগমারায় জমি রেজিস্ট্রি নিয়ে বৃদ্ধা মাকে ৩ দিন ঘরে তালাবদ্ধ

নিজস্ব প্রতিবেদক :
  • আপডেট সময় : ০৩:৫৩:৪৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ ৯২ বার পড়া হয়েছে

রাজশাহী বাগমারায় জমি রেজিস্ট্রি করে নিয়ে বৃদ্ধা মাকে ৩ দিন ঘরে তালাবদ্ধ করে ছেলেরা। প্রতারণার মাধ্যমে জমি রেজিস্ট্রি নিয়ে মানসিক ভারসাম্যহীন বৃদ্ধা মাকে তিন দিন ধরে একটি ঘরে তালাবদ্ধ করে রাখে তার দুই ছেলে। পরে থানায় অভিযোগের পর পুলিশ ওই বৃদ্ধাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। রোববার ওই বৃদ্ধাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

থানার ওসি আমিনুল ইসলাম জানান, জমি রেজিস্ট্রি করে নেওয়ার বিষয়টি প্রকাশ হয়ে যেতে পারে- এ কারণেই ওই বৃদ্ধাকে ঘরে তালাবদ্ধ করে রাখা হয়েছিল। ঘটনাটি জানার পর বৃদ্ধাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার গণিপুর গ্রামের সাধন প্রামাণিক প্রায় ২০ বছর আগে এক স্ত্রী, চার ছেলে ও এক মেয়ে রেখে মারা যান। সম্প্রতি সাধন প্রামানিকের স্ত্রী আজিমুন বেওয়া মানসিক ভারসাম্যহীন হয়ে পড়ে। ওই বৃদ্ধাকে তার বড় ছেলে মৃত আবু বকর প্রামানিকের ছেলে বাচ্চু প্রামানিক (নাতি) দেখাশোনা করে আসছিলেন। কিন্তু হঠাৎ করে গত বুধবার থেকে বৃদ্ধা আজিমুন বেওয়াকে আর খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না।

এরপর প্রতিবেশীরা জানতে পারেন, ওই বৃদ্ধার কাছ থেকে তার ছোট দুই ছেলে আব্দুস সাত্তার ও আয়েন উদ্দিন প্রতারণার মাধ্যমে সব জমি রেজিস্ট্রি করে নিয়ে তাকে একটি ঘরে তালাবদ্ধ করে রেখেছে। এ ঘটনায় নাতি বাচ্চু প্রামানিক বাদী হয়ে আব্দুস সাত্তার ও আয়েন উদ্দিনসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দেন।এরপর পুলিশ ব্যবস্থা গ্রহণ করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

বাগমারায় জমি রেজিস্ট্রি নিয়ে বৃদ্ধা মাকে ৩ দিন ঘরে তালাবদ্ধ

আপডেট সময় : ০৩:৫৩:৪৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

রাজশাহী বাগমারায় জমি রেজিস্ট্রি করে নিয়ে বৃদ্ধা মাকে ৩ দিন ঘরে তালাবদ্ধ করে ছেলেরা। প্রতারণার মাধ্যমে জমি রেজিস্ট্রি নিয়ে মানসিক ভারসাম্যহীন বৃদ্ধা মাকে তিন দিন ধরে একটি ঘরে তালাবদ্ধ করে রাখে তার দুই ছেলে। পরে থানায় অভিযোগের পর পুলিশ ওই বৃদ্ধাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। রোববার ওই বৃদ্ধাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

থানার ওসি আমিনুল ইসলাম জানান, জমি রেজিস্ট্রি করে নেওয়ার বিষয়টি প্রকাশ হয়ে যেতে পারে- এ কারণেই ওই বৃদ্ধাকে ঘরে তালাবদ্ধ করে রাখা হয়েছিল। ঘটনাটি জানার পর বৃদ্ধাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার গণিপুর গ্রামের সাধন প্রামাণিক প্রায় ২০ বছর আগে এক স্ত্রী, চার ছেলে ও এক মেয়ে রেখে মারা যান। সম্প্রতি সাধন প্রামানিকের স্ত্রী আজিমুন বেওয়া মানসিক ভারসাম্যহীন হয়ে পড়ে। ওই বৃদ্ধাকে তার বড় ছেলে মৃত আবু বকর প্রামানিকের ছেলে বাচ্চু প্রামানিক (নাতি) দেখাশোনা করে আসছিলেন। কিন্তু হঠাৎ করে গত বুধবার থেকে বৃদ্ধা আজিমুন বেওয়াকে আর খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না।

এরপর প্রতিবেশীরা জানতে পারেন, ওই বৃদ্ধার কাছ থেকে তার ছোট দুই ছেলে আব্দুস সাত্তার ও আয়েন উদ্দিন প্রতারণার মাধ্যমে সব জমি রেজিস্ট্রি করে নিয়ে তাকে একটি ঘরে তালাবদ্ধ করে রেখেছে। এ ঘটনায় নাতি বাচ্চু প্রামানিক বাদী হয়ে আব্দুস সাত্তার ও আয়েন উদ্দিনসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দেন।এরপর পুলিশ ব্যবস্থা গ্রহণ করেন।