ঢাকা ০৪:৫৬ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পাবনায় আ’ লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে ৩ জন গুলিবিদ্ধসহ আহত- ১৫

দেশের আওয়াজ ডেস্কঃ
  • আপডেট সময় : ১০:১১:৪৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ৪০ বার পড়া হয়েছে

পাওনা টাকা চাওয়া নিয়ে পাবনার সাঁথিয়ায় আওয়ামীলীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে ৩ জন গুলিবিদ্ধসহ অন্তত ১৫ জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহত ৮ জনকে বেড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, বেড়া উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি ও জেলা পরিষদ সদস্য মাসুদ রানা ময়ছার সাঁথিয়া উপজেলার করমজা গ্রামের আওয়ামীলীগ সমর্থক কালু মল্লিকের কাছে টাকা পেতেন।ময়ছার সেই টাকা চান কালু মল্লিকের কাছে।

এ নিয়ে তাদের মধ্যে বাক বিতণ্ডা হয়। একে অপরকে দেখে নেবারও হুমকি দেয়া হয়। এ নিয়ে উভয়পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা চলছিল।

শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) দুপুরের দিকে মাসুদ রানা ময়ছার তার সমর্থকদের নিয়ে সানিলা মহল্লা থেকে নৌকার পক্ষে শান্তি মিছিল নিয়ে করমজা গ্রামের দিকে যায়। এ সময় কালু মল্লিকের লোকজন তাদের ওপর হামলা চালালে সংঘর্ষ বাধে।
সংঘর্ষে আগ্নেয়াস্ত্র, দেশীয় অস্ত্র ও ইট পাটকেল ব্যবহার করা হয়। এতে ৩ জন গুলিবিদ্ধ সহ উভয়পক্ষের অন্তত ১৫ জন আহত হয়। আহতদের বেড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

সাঁথিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হাসান আলী বলেন, বিষয়টির সঙ্গে দলের লোক ইনভলভ হলেও ঘটনাটি অরাজনৈতিক এবং আর্থিক লেনদেনের বিষয়। তাই এটিকে রাজনৈতিক বলা ঠিক হবে না।

পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম জানান, এ ঘটনার পর পরিস্থিতি এখন শান্ত রয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

পাবনায় আ’ লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে ৩ জন গুলিবিদ্ধসহ আহত- ১৫

আপডেট সময় : ১০:১১:৪৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

পাওনা টাকা চাওয়া নিয়ে পাবনার সাঁথিয়ায় আওয়ামীলীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে ৩ জন গুলিবিদ্ধসহ অন্তত ১৫ জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহত ৮ জনকে বেড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, বেড়া উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি ও জেলা পরিষদ সদস্য মাসুদ রানা ময়ছার সাঁথিয়া উপজেলার করমজা গ্রামের আওয়ামীলীগ সমর্থক কালু মল্লিকের কাছে টাকা পেতেন।ময়ছার সেই টাকা চান কালু মল্লিকের কাছে।

এ নিয়ে তাদের মধ্যে বাক বিতণ্ডা হয়। একে অপরকে দেখে নেবারও হুমকি দেয়া হয়। এ নিয়ে উভয়পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা চলছিল।

শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) দুপুরের দিকে মাসুদ রানা ময়ছার তার সমর্থকদের নিয়ে সানিলা মহল্লা থেকে নৌকার পক্ষে শান্তি মিছিল নিয়ে করমজা গ্রামের দিকে যায়। এ সময় কালু মল্লিকের লোকজন তাদের ওপর হামলা চালালে সংঘর্ষ বাধে।
সংঘর্ষে আগ্নেয়াস্ত্র, দেশীয় অস্ত্র ও ইট পাটকেল ব্যবহার করা হয়। এতে ৩ জন গুলিবিদ্ধ সহ উভয়পক্ষের অন্তত ১৫ জন আহত হয়। আহতদের বেড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

সাঁথিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হাসান আলী বলেন, বিষয়টির সঙ্গে দলের লোক ইনভলভ হলেও ঘটনাটি অরাজনৈতিক এবং আর্থিক লেনদেনের বিষয়। তাই এটিকে রাজনৈতিক বলা ঠিক হবে না।

পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম জানান, এ ঘটনার পর পরিস্থিতি এখন শান্ত রয়েছে।