ঢাকা ০৪:০৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

জ্ঞানবাপী মসজিদের দখল ছাড়ব না: ওয়াইসি

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ
  • আপডেট সময় : ১০:১৭:১৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ১২ বার পড়া হয়েছে

সম্প্রতি ভারতের বারাণসী জেলা আদালত আলোচিত জ্ঞানবাপী মসজিদ চত্বরে পূজার অনুমতি দিয়েছে। এ নিয়ে দেড় বছর ধরে শুনানি হয়েছে আদালতে। মুসলিম-পক্ষ উচ্চ আদালতে আপিলের প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছে। এই পরিস্থিতিতে হায়দরাবাদের সাংসদ তথা এমআইএম প্রধান আসাদুদ্দিন ওয়াইসি দৃঢ় বক্তব্য দিয়েছেন। ভারতে প্রভাবশালী মুসলিমদের মধ্যে ওয়াইসি অন্যতম।

ওয়াইসি বলেন, ‘আর কোনো মসজিদের দখল আমরা ছাড়ব না। অনেক হয়েছে।’ তার বক্তব্য, অযোধ্যার রাম মন্দির মামলার মতোই জ্ঞানবাপী মামলা এগোচ্ছে। আদালত যে রায়ই দিক, বাবরি মসজিদের মতো জ্ঞানবাপী মসজিদের দখল ছাড়া হবে না।

দেড় বছর আগে বারাণসী জেলা আদালত অঞ্জুমান ইন্তেজামিয়া মসজিদ কমিটির আবেদন খারিজ করে দিয়েছিল। হিন্দুপক্ষ জ্ঞানবাপী মসজিদে পূজা করার যে আবেদন করেছিল, অঞ্জুমান সেই আবেদন খারিজ করে দেয়ার কথা বলেছিল। কিন্তু আদালত মামলা শোনার কথা জানায়। সেই সময়েই ওয়াইসি এ বিষয়ে তার আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন। বলেছিলেন, অযোধ্যা মামলার মতোই এই মামলাটি এগোচ্ছে।

গত জানুয়ারি মাসে আদালত ওই মসজিদ চত্বরে হিন্দুদের পূজা করার অনুমতি দিয়েছে। মুসলিম পক্ষ উচ্চ আদালতে এর বিরুদ্ধে আবেদনের প্রস্তুতি নিচ্ছে। এরমধ্যেই ওয়েইসি তার বক্তব্য স্পষ্ট করে দিয়েছেন। তার বক্তব্য, এই রায়ের ফলে দেশে ফের অস্থিরতা সৃষ্টির আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। ১৯৯২ সালের ৬ ডিসেম্বরের স্মৃতিও স্মরণ করিয়ে দেন তিনি।

ওয়াইসির সঙ্গে একমত ভারতের একাধিক মুসলিম সংগঠন। সর্বভারতী মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের মুখপাত্র কাসিম রসুল ইলিয়াস বলেন, ‘বাবরি মসজিদ-রামমন্দির মামলায় আমাদের সঙ্গে সঠিক বিচার হয়নি। তবু আমরা ওই রায় মেনে নিয়েছি। কিন্তু আগামীতে আমরা সঠিক বিচার না পেলে নিজেদের অবস্থান থেকে সরব না।’ উল্লেখ না করলেও ইলিয়াস জ্ঞানবাপী এবং মথুরা মসজিদের দিকে ইঙ্গিত করেছেন।

সূত্র: ডয়চে ভেলে

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

জ্ঞানবাপী মসজিদের দখল ছাড়ব না: ওয়াইসি

আপডেট সময় : ১০:১৭:১৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

সম্প্রতি ভারতের বারাণসী জেলা আদালত আলোচিত জ্ঞানবাপী মসজিদ চত্বরে পূজার অনুমতি দিয়েছে। এ নিয়ে দেড় বছর ধরে শুনানি হয়েছে আদালতে। মুসলিম-পক্ষ উচ্চ আদালতে আপিলের প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছে। এই পরিস্থিতিতে হায়দরাবাদের সাংসদ তথা এমআইএম প্রধান আসাদুদ্দিন ওয়াইসি দৃঢ় বক্তব্য দিয়েছেন। ভারতে প্রভাবশালী মুসলিমদের মধ্যে ওয়াইসি অন্যতম।

ওয়াইসি বলেন, ‘আর কোনো মসজিদের দখল আমরা ছাড়ব না। অনেক হয়েছে।’ তার বক্তব্য, অযোধ্যার রাম মন্দির মামলার মতোই জ্ঞানবাপী মামলা এগোচ্ছে। আদালত যে রায়ই দিক, বাবরি মসজিদের মতো জ্ঞানবাপী মসজিদের দখল ছাড়া হবে না।

দেড় বছর আগে বারাণসী জেলা আদালত অঞ্জুমান ইন্তেজামিয়া মসজিদ কমিটির আবেদন খারিজ করে দিয়েছিল। হিন্দুপক্ষ জ্ঞানবাপী মসজিদে পূজা করার যে আবেদন করেছিল, অঞ্জুমান সেই আবেদন খারিজ করে দেয়ার কথা বলেছিল। কিন্তু আদালত মামলা শোনার কথা জানায়। সেই সময়েই ওয়াইসি এ বিষয়ে তার আশঙ্কা প্রকাশ করেছিলেন। বলেছিলেন, অযোধ্যা মামলার মতোই এই মামলাটি এগোচ্ছে।

গত জানুয়ারি মাসে আদালত ওই মসজিদ চত্বরে হিন্দুদের পূজা করার অনুমতি দিয়েছে। মুসলিম পক্ষ উচ্চ আদালতে এর বিরুদ্ধে আবেদনের প্রস্তুতি নিচ্ছে। এরমধ্যেই ওয়েইসি তার বক্তব্য স্পষ্ট করে দিয়েছেন। তার বক্তব্য, এই রায়ের ফলে দেশে ফের অস্থিরতা সৃষ্টির আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। ১৯৯২ সালের ৬ ডিসেম্বরের স্মৃতিও স্মরণ করিয়ে দেন তিনি।

ওয়াইসির সঙ্গে একমত ভারতের একাধিক মুসলিম সংগঠন। সর্বভারতী মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের মুখপাত্র কাসিম রসুল ইলিয়াস বলেন, ‘বাবরি মসজিদ-রামমন্দির মামলায় আমাদের সঙ্গে সঠিক বিচার হয়নি। তবু আমরা ওই রায় মেনে নিয়েছি। কিন্তু আগামীতে আমরা সঠিক বিচার না পেলে নিজেদের অবস্থান থেকে সরব না।’ উল্লেখ না করলেও ইলিয়াস জ্ঞানবাপী এবং মথুরা মসজিদের দিকে ইঙ্গিত করেছেন।

সূত্র: ডয়চে ভেলে