ঢাকা ০৯:১৩ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

জিয়াউর রহমানের আজ ৮৮তম জন্মবার্ষিকী

দেশের আওয়াজ ডেস্কঃ
  • আপডেট সময় : ০২:৪০:৫৪ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২৪ ২৯ বার পড়া হয়েছে

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৮৮তম জন্মবার্ষিকী আজ শুক্রবার। ১৯৩৬ সালের এইদিনে বগুড়ার গাবতলী উপজেলার বাগবাড়ী গ্রামে তিনি জন্মগ্রহণ করেন। জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে দুদিনের কর্মসূচি পালন করছে বিএনপি। এর অংশ হিসেবে গতকাল বৃহস্পতিবার রাজধানীতে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

আজ ভোরে ঢাকাসহ সারা দেশে দলীয় কার্যালয়ে দলীয় পতাকা উত্তোলন এবং রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে জিয়াউর রহমানের কবরে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হবে। বিএনপির অঙ্গসহযোগী সংগঠনের পক্ষ থেকেও নানা কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।

রসায়নবিদ মনসুর রহমান ও জাহানারা খাতুন দম্পতির পাঁচ ছেলের মধ্যে জিয়াউর রহমান ছিলেন দ্বিতীয়। তার ডাকনাম কমল। বগুড়া ও কলকাতায় শৈশব এবং কৈশোর অতিবাহিত করেন জিয়াউর রহমান। পরে বাবার সঙ্গে চলে যান পশ্চিম পাকিস্তানে। সেখানে শিক্ষাজীবন শেষে ১৯৫৫ সালে তিনি পাকিস্তান মিলিটারি একাডেমিতে অফিসার হিসেবে কমিশন লাভ করেন।

১৯৭১ সালের ২৭ মার্চ চট্টগ্রামের কালুরঘাটে স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্র থেকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পক্ষে বাংলাদেশের স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়ে আলোচনায় আসেন জিয়া। মুক্তিযুদ্ধ পরিচালনাকারী প্রবাসী বাংলাদেশ সরকার তাকে ‘জেড’ ফোর্সের অধিনায়ক এবং সেক্টর কমান্ডার নিয়োগ করে। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বিপথগামী একদল সেনা সদস্যের হাতে বঙ্গবন্ধু নির্মমভাবে সপরিবারে হত্যার শিকার হন। এর কয়েকদিন পরই জিয়া নিয়োগ পান সেনাপ্রধান হিসেবে। এরপর ঘটনাবহুল ৭ নভেম্বর জিয়াউর রহমান রাষ্ট্রক্ষমতার কেন্দ্রবিন্দুতে চলে আসেন। পরে তিনি নিজেকে প্রধান সামরিক আইন প্রশাসক ঘোষণা করেন। পরে হন রাষ্ট্রপতি।
রাষ্ট্র ক্ষমতায় থাকার সময়ই ১৯৭৮ সালের ১ সেপ্টেম্বরে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি প্রতিষ্ঠা করেন জিয়াউর রহমান। রাষ্ট্রপ্রধানের পদে থাকা অবস্থাতে ১৯৮১ সালের ৩০ মে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসে এক ব্যর্থ সেনা বিদ্রোহে নিহত হন তিনি।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

জিয়াউর রহমানের আজ ৮৮তম জন্মবার্ষিকী

আপডেট সময় : ০২:৪০:৫৪ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২৪

বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ৮৮তম জন্মবার্ষিকী আজ শুক্রবার। ১৯৩৬ সালের এইদিনে বগুড়ার গাবতলী উপজেলার বাগবাড়ী গ্রামে তিনি জন্মগ্রহণ করেন। জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে দুদিনের কর্মসূচি পালন করছে বিএনপি। এর অংশ হিসেবে গতকাল বৃহস্পতিবার রাজধানীতে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

আজ ভোরে ঢাকাসহ সারা দেশে দলীয় কার্যালয়ে দলীয় পতাকা উত্তোলন এবং রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে জিয়াউর রহমানের কবরে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হবে। বিএনপির অঙ্গসহযোগী সংগঠনের পক্ষ থেকেও নানা কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে।

রসায়নবিদ মনসুর রহমান ও জাহানারা খাতুন দম্পতির পাঁচ ছেলের মধ্যে জিয়াউর রহমান ছিলেন দ্বিতীয়। তার ডাকনাম কমল। বগুড়া ও কলকাতায় শৈশব এবং কৈশোর অতিবাহিত করেন জিয়াউর রহমান। পরে বাবার সঙ্গে চলে যান পশ্চিম পাকিস্তানে। সেখানে শিক্ষাজীবন শেষে ১৯৫৫ সালে তিনি পাকিস্তান মিলিটারি একাডেমিতে অফিসার হিসেবে কমিশন লাভ করেন।

১৯৭১ সালের ২৭ মার্চ চট্টগ্রামের কালুরঘাটে স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্র থেকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পক্ষে বাংলাদেশের স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়ে আলোচনায় আসেন জিয়া। মুক্তিযুদ্ধ পরিচালনাকারী প্রবাসী বাংলাদেশ সরকার তাকে ‘জেড’ ফোর্সের অধিনায়ক এবং সেক্টর কমান্ডার নিয়োগ করে। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বিপথগামী একদল সেনা সদস্যের হাতে বঙ্গবন্ধু নির্মমভাবে সপরিবারে হত্যার শিকার হন। এর কয়েকদিন পরই জিয়া নিয়োগ পান সেনাপ্রধান হিসেবে। এরপর ঘটনাবহুল ৭ নভেম্বর জিয়াউর রহমান রাষ্ট্রক্ষমতার কেন্দ্রবিন্দুতে চলে আসেন। পরে তিনি নিজেকে প্রধান সামরিক আইন প্রশাসক ঘোষণা করেন। পরে হন রাষ্ট্রপতি।
রাষ্ট্র ক্ষমতায় থাকার সময়ই ১৯৭৮ সালের ১ সেপ্টেম্বরে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল-বিএনপি প্রতিষ্ঠা করেন জিয়াউর রহমান। রাষ্ট্রপ্রধানের পদে থাকা অবস্থাতে ১৯৮১ সালের ৩০ মে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসে এক ব্যর্থ সেনা বিদ্রোহে নিহত হন তিনি।