ঢাকা ০১:৫৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ৩০ চৈত্র ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ঘরে স্বামীর গলাকাটা লাশ, বিবস্ত্র স্ত্রীকে পাওয়া গেল ধানক্ষেতে

ময়মনসিংহ প্রতিবেদক:
  • আপডেট সময় : ০৭:৩৬:১১ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১০ জুন ২০২৩ ১১৩ বার পড়া হয়েছে

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় নিজ বসতঘর থেকে শাজাহান (৫৫) নামে এক ব্যক্তির গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ সময় তার স্ত্রীকে বিবস্ত্র অবস্থায় বাড়ির পাশের ধানক্ষেতে পাওয়া যায়।

ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার মানকোন ইউনিয়নের ঘাটুরি বটতলা গ্রামে শনিবার (১০ জুন) ভোর সাড়ে ৫টার দিকে।

নিহত শাজাহান ওই একই এলাকার মৃত ইয়ার উদ্দিনের ছেলে। শাজাহানের সংসারে ৩ মেয়ে ও ১ ছেলে সন্তান রয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, পৈতৃক সম্পত্তির ভাগাভাগি নিয়ে আপন ভাইদের সঙ্গে অনেক দিন ধরে বিরোধ চলছিল। শাজাহানের ওই সম্পত্তি নিয়ে (মৃত্যুর দিন) শনিবার স্থানীয় সালিশ-মীমাংসা হওয়ার কথা ছিল।

শুক্রবার (৯ জুন) রাতে বাজার থেকে বাড়ি ফিরে খাওয়াদাওয়া শেষে নিজের বসতঘরে ঘুমিয়ে পড়েন শাজাহান ও তার স্ত্রী।

পাশের ঘরে ঘুমিয়ে থাকা নিহতের ১০ বছরের মেয়ে ভোর সাড়ে ৫টার দিকে তার বাবাকে ডাকতে যায়। কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে কাছে গিয়ে দেখে কে বা কারা তার বাবার গলা কেটে হত্যা করেছে। পরে তার চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এসে পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে লাশ উদ্ধার করে।

অন্যদিকে নিহত শাজাহানের স্ত্রীকে বিবস্ত্র অবস্থায় পাশের একটি ধান ক্ষেতে পাওয়া যায়। তাকেও উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

নিহতের মেয়েদের দাবি, চাচাদের সঙ্গে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে তারা হয়তো বাবাকে গলা কেটে হত্যা করেছে। এর আগে তাদের বাবাকে বিভিন্নভাবে হয়রানি করেছেন তারা চাচারা।

এ প্রসঙ্গে মুক্তাগাছা থানার ওসি মো. আব্দুল মজিদ জানান, কে বা কারা ঘটনাটি ঘটিয়েছে তা এখনো জানা যায়নি। রহস্য উদ্ঘাটনে কাজ করছে পুলিশ। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, জমি নিয়ে বিরোধের জেরে ঘটনাটি ঘটতে পারে। লাশ উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে থানায় আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

ঘরে স্বামীর গলাকাটা লাশ, বিবস্ত্র স্ত্রীকে পাওয়া গেল ধানক্ষেতে

আপডেট সময় : ০৭:৩৬:১১ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১০ জুন ২০২৩

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় নিজ বসতঘর থেকে শাজাহান (৫৫) নামে এক ব্যক্তির গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ সময় তার স্ত্রীকে বিবস্ত্র অবস্থায় বাড়ির পাশের ধানক্ষেতে পাওয়া যায়।

ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার মানকোন ইউনিয়নের ঘাটুরি বটতলা গ্রামে শনিবার (১০ জুন) ভোর সাড়ে ৫টার দিকে।

নিহত শাজাহান ওই একই এলাকার মৃত ইয়ার উদ্দিনের ছেলে। শাজাহানের সংসারে ৩ মেয়ে ও ১ ছেলে সন্তান রয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, পৈতৃক সম্পত্তির ভাগাভাগি নিয়ে আপন ভাইদের সঙ্গে অনেক দিন ধরে বিরোধ চলছিল। শাজাহানের ওই সম্পত্তি নিয়ে (মৃত্যুর দিন) শনিবার স্থানীয় সালিশ-মীমাংসা হওয়ার কথা ছিল।

শুক্রবার (৯ জুন) রাতে বাজার থেকে বাড়ি ফিরে খাওয়াদাওয়া শেষে নিজের বসতঘরে ঘুমিয়ে পড়েন শাজাহান ও তার স্ত্রী।

পাশের ঘরে ঘুমিয়ে থাকা নিহতের ১০ বছরের মেয়ে ভোর সাড়ে ৫টার দিকে তার বাবাকে ডাকতে যায়। কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে কাছে গিয়ে দেখে কে বা কারা তার বাবার গলা কেটে হত্যা করেছে। পরে তার চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এসে পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে লাশ উদ্ধার করে।

অন্যদিকে নিহত শাজাহানের স্ত্রীকে বিবস্ত্র অবস্থায় পাশের একটি ধান ক্ষেতে পাওয়া যায়। তাকেও উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।

নিহতের মেয়েদের দাবি, চাচাদের সঙ্গে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে তারা হয়তো বাবাকে গলা কেটে হত্যা করেছে। এর আগে তাদের বাবাকে বিভিন্নভাবে হয়রানি করেছেন তারা চাচারা।

এ প্রসঙ্গে মুক্তাগাছা থানার ওসি মো. আব্দুল মজিদ জানান, কে বা কারা ঘটনাটি ঘটিয়েছে তা এখনো জানা যায়নি। রহস্য উদ্ঘাটনে কাজ করছে পুলিশ। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, জমি নিয়ে বিরোধের জেরে ঘটনাটি ঘটতে পারে। লাশ উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে থানায় আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।