ঢাকা ১১:৩৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশনের নবগঠিত কমিটির যাত্রা শুরু চালের বস্তায় দামসহ থাকতে হবে সব তথ্য, পরিপত্র জারি টি-টোয়েন্টিতে দ্রুততম ১০ হাজারে শীর্ষে বাবর অমর একুশে ময়মনসিংহে শহীদ বেদীতে বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের শ্রদ্ধা নিবেদন ১৯৩ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের ওপর নিষেধাজ্ঞা অনুমোদন ইইউ’র স্মার্ট হতে ইংরেজিতে কথা বলতে হবে তা ঠিক নয়: প্রধানমন্ত্রী ভাষা শহীদদের স্মরণে দেশের প্রথম শহীদ মিনারে আরসিআরইউ’র শ্রদ্ধা স্মার্ট ত্রিশাল উপজেলা গড়তে জনগণের সেবক হতে চান’যুবনেতা জুয়েল সরকার পুঠিয়ায় শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত চুরির অপবাদ সইতে না পেরে পুঠিয়ায় নৈশ্য প্রহোরীর আত্মহত্যা

এম পিও বঞ্চিত বিন্নাকুড়ী উচ্চ বিদ্যালয়, হতাশায় শিক্ষক-কর্মচারীরা

আরিফ রববানী , ময়মনসিংহ ||
  • আপডেট সময় : ১২:১১:১৩ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১ ডিসেম্বর ২০২৩ ৫৯ বার পড়া হয়েছে

ময়মনসিংহ জেলার মুক্তাগাছা উপজেলার বিন্নাকুড়ী উচ্চ বিদ্যালয় যার EllN – 111907 আজো এম পিও ভূক্ত হয়নি – বড়ই আক্ষেপের সাথে এমনটাই জানিয়েছেন বিদ্যালয়টির বর্তমান ম্যানিজিং কমিটির সভাপতি আব্দুল মালেক।

তিনি এই প্রতিবেদককে জানান বিগত ২০০০ সালে বিদ্যালয়টি জুনিয়র হাইস্কুল হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর থেকেই এলাকার শিক্ষার্থীদের পাঠদান শুরু হয়। এরপর বিগত ২০০৭ সালে বিদ্যালয়টি একটি পূর্ণাঙ্গ উচ্চ বিদ্যালয়ের অনুমতি পাওয়ার পর বিদ্যালয়টির শিক্ষার্থীরা এস এস সি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে কৃতিত্ব দেখিয়ে আসছে।

তিনি আরো বলেন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে বিদ্যালয়টিকে এম পিও ভূক্ত করার আবেদন করলেও অদ্যবধি কোনো সাড়া না পাওয়ায় বিদ্যালের শিক্ষক – কর্মচারীগণ চরম হতাশায় ভুগছেন।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় ৬ ষ্ঠ হতে ১০ম শ্রেণিরতে বর্তমানে ৩২৬ জন ছেলে-মেয়ে শিক্ষার্থী রয়েছে। ২০২৪ সালে এস এস সি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য ৫৩ জন্য নির্ধারিত ফর্ম ফিলাপ করেছে।

তিনি আরো জানান সরকারীভাবে বিদ্যালয়টির চারতলা ভবন নির্মান বিগত ৫ বছর পূর্বে শুরু হলেও ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান অদ্যবদি ভবনের কাজ সম্পুর্ন করেনি এতে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ভবটিতে শিক্ষার্থীদের পাঠদনা করছেন শিক্ষকগণ। তিনি আরো অভিযোগ করে বলেন এবিষয়ে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের সাথে বার বার যোগাযোগ করেও কোনা সাড়া পাওয়া যায়নি।

এদিকে দীর্ঘদিন যাবৎ বিদ্যালয়ে বিনা বেতনে ৮ জন পুরুষ এবং ২ জন মহিলা শিক্ষক, ৩য় শ্রেণির ১জন ও ৪র্থ শ্রেণির ২ জন কর্মচারী আর্থিক অনটনে তাদের পরিবারের সদস্যদের নিয়ে অতিব মানবেতর জীবনযাপন করছেন।

বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক মোঃ রুহুল কুদ্দুস এই প্রতিবেদকের মাধ্যমে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রীর শুভদৃষ্টি কামনা করে বলেন – আমার জীবদ্দশায় একমাত্র ইচ্ছা বিন্নাকুড়ী উচ্চ বিদ্যায়টি যাতে এম পি ও ভূক্ত হয়।
আমি যেনো জীবদ্দশায় এম পি ও ভূক্ত শিক্ষক হয়ে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করতে পারি এটাই আমার জীবনের শেষ ইচ্ছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

এম পিও বঞ্চিত বিন্নাকুড়ী উচ্চ বিদ্যালয়, হতাশায় শিক্ষক-কর্মচারীরা

আপডেট সময় : ১২:১১:১৩ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ১ ডিসেম্বর ২০২৩

ময়মনসিংহ জেলার মুক্তাগাছা উপজেলার বিন্নাকুড়ী উচ্চ বিদ্যালয় যার EllN – 111907 আজো এম পিও ভূক্ত হয়নি – বড়ই আক্ষেপের সাথে এমনটাই জানিয়েছেন বিদ্যালয়টির বর্তমান ম্যানিজিং কমিটির সভাপতি আব্দুল মালেক।

তিনি এই প্রতিবেদককে জানান বিগত ২০০০ সালে বিদ্যালয়টি জুনিয়র হাইস্কুল হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হওয়ার পর থেকেই এলাকার শিক্ষার্থীদের পাঠদান শুরু হয়। এরপর বিগত ২০০৭ সালে বিদ্যালয়টি একটি পূর্ণাঙ্গ উচ্চ বিদ্যালয়ের অনুমতি পাওয়ার পর বিদ্যালয়টির শিক্ষার্থীরা এস এস সি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে কৃতিত্ব দেখিয়ে আসছে।

তিনি আরো বলেন শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে বিদ্যালয়টিকে এম পিও ভূক্ত করার আবেদন করলেও অদ্যবধি কোনো সাড়া না পাওয়ায় বিদ্যালের শিক্ষক – কর্মচারীগণ চরম হতাশায় ভুগছেন।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় ৬ ষ্ঠ হতে ১০ম শ্রেণিরতে বর্তমানে ৩২৬ জন ছেলে-মেয়ে শিক্ষার্থী রয়েছে। ২০২৪ সালে এস এস সি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য ৫৩ জন্য নির্ধারিত ফর্ম ফিলাপ করেছে।

তিনি আরো জানান সরকারীভাবে বিদ্যালয়টির চারতলা ভবন নির্মান বিগত ৫ বছর পূর্বে শুরু হলেও ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান অদ্যবদি ভবনের কাজ সম্পুর্ন করেনি এতে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ভবটিতে শিক্ষার্থীদের পাঠদনা করছেন শিক্ষকগণ। তিনি আরো অভিযোগ করে বলেন এবিষয়ে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের সাথে বার বার যোগাযোগ করেও কোনা সাড়া পাওয়া যায়নি।

এদিকে দীর্ঘদিন যাবৎ বিদ্যালয়ে বিনা বেতনে ৮ জন পুরুষ এবং ২ জন মহিলা শিক্ষক, ৩য় শ্রেণির ১জন ও ৪র্থ শ্রেণির ২ জন কর্মচারী আর্থিক অনটনে তাদের পরিবারের সদস্যদের নিয়ে অতিব মানবেতর জীবনযাপন করছেন।

বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক মোঃ রুহুল কুদ্দুস এই প্রতিবেদকের মাধ্যমে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রীর শুভদৃষ্টি কামনা করে বলেন – আমার জীবদ্দশায় একমাত্র ইচ্ছা বিন্নাকুড়ী উচ্চ বিদ্যায়টি যাতে এম পি ও ভূক্ত হয়।
আমি যেনো জীবদ্দশায় এম পি ও ভূক্ত শিক্ষক হয়ে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করতে পারি এটাই আমার জীবনের শেষ ইচ্ছে।