ঢাকা ০৩:৫৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৫ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সিলেটে হত্যার ২২ বছর পর ৪ আসামির মৃত্যুদণ্ড

দেশের আওয়াজ ডেস্কঃ
  • আপডেট সময় : ০৬:০৫:১৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুলাই ২০২৩ ৬৬ বার পড়া হয়েছে

সিলেটের গোইয়ানঘাটে হাত-পা বেঁধে এক ব্যক্তিতে কুপিয়ে হত্যার ২২ বছর পর ১১ আসামির মধ্যে চারজনকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে তাদের প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়।
সোমবার দুপুরে আলোচিত এ হত্যাকাণ্ডের ২২ বছর পর সিলেটের বিভাগীয় স্পেশাল জজ আদালতের বিচারক আব্দুল্লাহ আল মামুন এ রায় দেন। দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন- গোয়াইনঘাট উপজেলার ইস্তি গ্রামের আব্দুর রব, আব্দুর রহমান, মো. ফজল উদ্দিন ও মো. রইস আলী।

আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) মো. ফখরুল ইসলাম জানান, ২০০১ সালের ৮ আগস্ট সকালে সিলেটের গোয়াইনঘাট উপজেলার ইস্তি গ্রামে একটি খাল দখলকে কেন্দ্র করে হাত-পা বেঁধে তমজিদ আলীকে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। হত্যার পর মরদেহ হাওরে ফেলে রাখেন তারা। পরদিন ৯ আগস্ট নিহতের স্ত্রী পেয়ারা বেগম ১৫ জনের নাম উল্লেখ করে গোয়াইনঘাট থানায় মামলা করেন। এই মামলার অপর ১১ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় তাদের বেকসুর খালাস দিয়েছেন আদালত।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

সিলেটে হত্যার ২২ বছর পর ৪ আসামির মৃত্যুদণ্ড

আপডেট সময় : ০৬:০৫:১৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুলাই ২০২৩

সিলেটের গোইয়ানঘাটে হাত-পা বেঁধে এক ব্যক্তিতে কুপিয়ে হত্যার ২২ বছর পর ১১ আসামির মধ্যে চারজনকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে তাদের প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়।
সোমবার দুপুরে আলোচিত এ হত্যাকাণ্ডের ২২ বছর পর সিলেটের বিভাগীয় স্পেশাল জজ আদালতের বিচারক আব্দুল্লাহ আল মামুন এ রায় দেন। দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হলেন- গোয়াইনঘাট উপজেলার ইস্তি গ্রামের আব্দুর রব, আব্দুর রহমান, মো. ফজল উদ্দিন ও মো. রইস আলী।

আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) মো. ফখরুল ইসলাম জানান, ২০০১ সালের ৮ আগস্ট সকালে সিলেটের গোয়াইনঘাট উপজেলার ইস্তি গ্রামে একটি খাল দখলকে কেন্দ্র করে হাত-পা বেঁধে তমজিদ আলীকে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। হত্যার পর মরদেহ হাওরে ফেলে রাখেন তারা। পরদিন ৯ আগস্ট নিহতের স্ত্রী পেয়ারা বেগম ১৫ জনের নাম উল্লেখ করে গোয়াইনঘাট থানায় মামলা করেন। এই মামলার অপর ১১ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় তাদের বেকসুর খালাস দিয়েছেন আদালত।