ঢাকা ০৫:৫০ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৫ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গোদাগাড়ীতে ঐতিহ্যবাহী চরক পূজা অনুষ্ঠিত

মোঃ রবিউল ইসলাম মিনাল, গোদাগাড়ী ( রাজশাহী ):
  • আপডেট সময় : ০৮:০৮:৪৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৩ ৯০ বার পড়া হয়েছে

রাজশাহী জেলার গোদাগাড়ী উপজেলায় প্রায় ৪০০ বছরের ঐতিহ্য নিয়ে এবারের চৈত্র্য সংক্রান্তি তিথীতে পূজা অর্চনার মধ্যে দিয়ে ভক্তদের মিলনমেলায় অনুষ্ঠিত হলো উপজেলার ৩ নং পাকড়ী ইউনিয়ন এর ঝাল পুকুর মন্দির কমিটির আয়োজনে ঐতিহ্যবাহী চরক মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
হাজার হাজার নর নারী ভক্তদের উপস্থিতিতে এবারের চরক পূজায় পুজারী বলেন, মা শীতলা ও বুড়ি মাতাকে সন্তোষ্ট করতে মূলত চরক পূজা করা হয়। আমার পিঠে বরশী গেঁথে চরকের মাধ্যমে চরকিd ঘুরিয়ে সকল সাম্প্রদায়িক-অধর্মের বিনাশ, অসত্যকে বিতারিত করে শান্তির সনাতনী বার্তা প্রতিষ্ঠিত করাই হচ্ছে চরক পূজার পবিত্র মাহাত্ব্য। ঝাল পুকুর মন্দির কমিটির সভাপতি গণেশ মাহাতো জানান, আমাদের এই চড়ক পূজা যুগ যুগ ধরে আনুমানিক ৪০০ শত বছর থেকে গড়া উঠা ধর্মীয় ঐতিহ্যের প্রতিক হচ্ছে এই চরক মেলা। মূলত স্থানীয় ভক্তদের আর্থিক অনুদানে এই পূজা অর্চনা অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। সরকারী অনুদান পেলে আমরা আরোও বৃহৎ পরিষরে চরক পূজা করতে পারবো। চরক পূজাকে কেন্দ্র করে নানা ধরনের দোকান পাট বসে যা মেলায় রুপান্তর হয়। এছাড়া অনেকে মনোবাসনা ও ভক্তি সহকারে মা শীতলা ও বুড়ি মাতার কাছে মানত করে ফল পায়।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

গোদাগাড়ীতে ঐতিহ্যবাহী চরক পূজা অনুষ্ঠিত

আপডেট সময় : ০৮:০৮:৪৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৩

রাজশাহী জেলার গোদাগাড়ী উপজেলায় প্রায় ৪০০ বছরের ঐতিহ্য নিয়ে এবারের চৈত্র্য সংক্রান্তি তিথীতে পূজা অর্চনার মধ্যে দিয়ে ভক্তদের মিলনমেলায় অনুষ্ঠিত হলো উপজেলার ৩ নং পাকড়ী ইউনিয়ন এর ঝাল পুকুর মন্দির কমিটির আয়োজনে ঐতিহ্যবাহী চরক মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
হাজার হাজার নর নারী ভক্তদের উপস্থিতিতে এবারের চরক পূজায় পুজারী বলেন, মা শীতলা ও বুড়ি মাতাকে সন্তোষ্ট করতে মূলত চরক পূজা করা হয়। আমার পিঠে বরশী গেঁথে চরকের মাধ্যমে চরকিd ঘুরিয়ে সকল সাম্প্রদায়িক-অধর্মের বিনাশ, অসত্যকে বিতারিত করে শান্তির সনাতনী বার্তা প্রতিষ্ঠিত করাই হচ্ছে চরক পূজার পবিত্র মাহাত্ব্য। ঝাল পুকুর মন্দির কমিটির সভাপতি গণেশ মাহাতো জানান, আমাদের এই চড়ক পূজা যুগ যুগ ধরে আনুমানিক ৪০০ শত বছর থেকে গড়া উঠা ধর্মীয় ঐতিহ্যের প্রতিক হচ্ছে এই চরক মেলা। মূলত স্থানীয় ভক্তদের আর্থিক অনুদানে এই পূজা অর্চনা অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। সরকারী অনুদান পেলে আমরা আরোও বৃহৎ পরিষরে চরক পূজা করতে পারবো। চরক পূজাকে কেন্দ্র করে নানা ধরনের দোকান পাট বসে যা মেলায় রুপান্তর হয়। এছাড়া অনেকে মনোবাসনা ও ভক্তি সহকারে মা শীতলা ও বুড়ি মাতার কাছে মানত করে ফল পায়।